Ticker

6/recent/ticker-posts

Header Ads Widget

ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে - ইউটিউবে সফলতা পেয়ে কি লাভ? Youtube Monthly earning

আসসালামু আলাইকুম আশা করি ভালো আছেন। এখন এমন একটা সময় অনেকেই চায় যে একজন সফল ইউটিউবার হতে। কিন্তি িএটা এতটাও সহজ না, আর যদি সহজ হতোই তাহলে এমন আসা করা সবাই ইউটিউবে নিজেদের আসন তৈরি করে নিতে পারতো। হ্যা তবে এটা অসম্ভব নয়, কিছু নিয়ম মেনে ভালো ভালো কন্টেন্ট আপলোড করলেই হবে। এটার জন্য দরকার হবে অনেক ধৈয্য। যা সবাই পারে না। আর এর জন্যই হয়ত তারা লেগে থাকে না এই কাজে আর সফল ও হতে পারে না।


সফল ইউটিবার হবার জন্য কি কি করা দরকার?

সঢল হতে গেলেই আপনাকে সেই কাজের পিছনে সময় এবং ধৈয্য দিতেই হবে, সে অন্য কোন কাজের ক্ষেত্রে হলেও। তাই এই কাজে যদি আনার আগ্রহ থাকে তাহলে কন্টেন্ট বানানোর সময় এই কয়েকটি বিষয় লক্ষ রাখবেন।

১. ট্রেন্ডিং টপিক
২. মাল্টি টপিক নিয়ে ভিডিও না বানানো।
৩. SEO করা।
৪. ট্যাগ অথবা কি-ওয়ার্ড বাছাই করা।
৫. কন্টেন্ট এবং থামনেইল ভালো রাখা।

আশা করি এই ৫ টি বিষয় মেনে যদি আপিনি নিয়মিত ভিডিও দিতে থাকেন তাহলে সফলতা পাবেন।

বর্তমানে বেশির ভাগ লোকই ইউটিউবে আর্নিং এর জন্য আসতে চায়। কিন্ত একটা জিনিসি মনে রাখবেন যদি আপনি েএখানে টাকার আয়ের উদ্দেশ্যে এস থাকেন তাহলে আপতত এই চিন্তা ভুলে গিয়ে আপনার ভিডিও ভালো করার চেষ্টা করুন। এতে এগোতে পারলে আপনার ইনকাম এমনিতেই হবে। আনেকেই হয়তো রেগুলার শুধু ভিডিও আপলোড দিয়ে যাচ্ছেন। কিন্তু কোয়ালিটি ঠিক নাই, এসইও করা নাই, ট্যাগ ব্যবহার না করেই নিজের মতো করে খালি আপলোড দিলে তা কখনো আগায় না। আর এর জন্য হয়ত আপনি সফল না হয়ে নিরাশ হয়ে যান।

ইউটিউবে কী কী বিষয়ে ভিডিও তৈরী করলে ভালো হবে?


বর্তমানে চলমান ট্রেন্ডিং টপিকের উপর িভিডিও বানালে তা ভালো রিচ পাবে। আর আপনি যদি একু ভওিলা করে আকর্ষনীয় থামনেইল বানিয়ে ভালোমতো ট্যাগস ব্যবহার করে ভিডিওটি ছাড়েন তবে সেটি ভালো একটা র‌্যাংকিং এ যাবে। আর তখন মানূষ এটি নিয়ে গুগল ইউটিউবে সার্চ করবে। এত যদি আপিনি তাদের সার্চ লিস্টে থাকতে পারেন তাহলে বুঝুন কি পরিমান ভিউজ আপনি পাবেন আর এটি করতে পারলে তখন সাবক্রাইম এমনিতেই বাড়বে। েএর জন্য আনপকে আর আলাদা কিছ করতে হবে না।
আপনি ইচ্ছে করলে এই টপিকেই ইউটিউব সর্ট বানিয়ে আপলোড দিতে পারেন। এত আরো বেশি লাভ হবে। এত আরো বেশি পরিমান ভিউজ আসবে আপনার চ্যানেল খুব তারাতাড়ি এগোবে।
আবার আপনার চ্যানেল যদি গ্র হয় এটা দেখে অন্য টপিকের ভিডিও আপলোড দিবেন না ভুলেও কারণ আপনার যে অডিযেন্স বেস তিরি হবে তারা আপনার আগের ভিডিও ৈএর টপিক দেখে আসছে। তাদের এগুলো ভালো নাও লাগতে পারে।
এই মনে করুন আনার একটা ওয়েবসাইট আছে। এখানে আপনি টিপস রিলেটেড পোস্ট করেন । আনার সাইটের ভিজিটর ও অনেক। এখন আপনি হঠাৎ করেই গানের লিরিক্স রিলেটেড পোস্ট করা শুরু করলেন। আগে যারা আগে আপনার সাইট থেকে টিপস নিতে আসতো তারা এখন অবশ্যআ গানের লিরিক্স নিতে আসবে না, তখন আপনি এই ফ্যানবেসটা হারাবেন।
ইউটিউবের ক্ষেত্রেও টিক এমনই।

ইউটিউবে সফলতা পেয়ে কি লাভ?

২০২২ সালে ইউটিউবে যদি আপনি নিজের ক্যরিয়ারকে সফল ভাবে ‍তুলে ধরতে চান তবে এর বিকল্প নাই। হ্যা একটি ভালো মানের চ্যানেল থেকে আপনি প্রতিমাসে যে পরিমান আয় করতে পারবেন তা দিয়ে অনাসায়ে ৩/৪ টা পরিবার চালানোর সক্ষমতা থাকবে। আনলাইনে টাকা উপার্জন করার ভালো এবং প্রমানিত জিনিস হিসাবে ইউটিউব অন্যতম। প্রতিবছর এর রেভিনিউ এর পরিমান কিছু করে বাড়ছে


আসা করি আমার পেস্ট থেকে কিছুটা হলেও বুঝতে পেরেছেন । বাকিটা আপনার কজের ইপর নির্ভরশীল।